রোহিঙ্গাদের জন্য ২০ টন তাঁবু নিয়ে তুরস্কের বিমান শাহ আমনতে

রোহিঙ্গাদের জন্য ২০ টন তাঁবু নিয়ে তুরস্কের বিমান শাহ আমনতে

কক্সবাজারের বালুখালি রোহিঙ্গা ক্যাম্পে অগ্নিকাণ্ডে ক্ষতিগ্রস্তদের জন তাঁবু নিয়ে হজরত শাহ আমানত আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে অবতরণ করেছে তুরস্ক বিমানবাহিনীর একটি প্লেন। শনিবার বেলা সোয়া দুইটার দিকে প্লেনটি অবতরণ করে।

শাহ আমানত বিমানবন্দরের ব্যবস্থাপক উইং কমান্ডার ফরহাদ হোসেন খান জানান, তুরস্ক বিমানবাহিনীর সি-১৩০ প্লেনটি রোহিঙ্গাদের জন্য ২০ টন তাঁবু নিয়ে এসেছে। রোববার প্লেনটি চলে যাবে।
উল্লেখ্য, গত ২২ মার্চ বালুখালীর রোহিঙ্গা ক্যাম্পে আগুনে সরকারি হিসাবে পুড়ে গেছে প্রায় দশ হাজার বসতঘর ও দোকানপাট। এতে ক্ষতিগ্রস্ত হয় ৪৫ হাজার মানুষ ও অগ্নিদগ্ধ হয়ে মারা যায় ১১ জন রোহিঙ্গা। অগ্নিকাণ্ডে বিরানভূমিতে পরিণত বালুখালী রোহিঙ্গা ক্যাম্প দ্রুত পাল্টে যাচ্ছে। ক্ষতিগ্রস্তরা সরকার এবং দেশি-বিদেশি সংস্থার সহযোগিতা পাওয়ায় দ্রুত ঘুরে দাঁড়াচ্ছে।

এদিকে, ধ্বংসস্তূপের মাঝেই সরকারি-বেসরকারি উদ্যোগে তৈরি হচ্ছে সারি সারি তাঁবু। এই তাঁবুগুলোতে ঠাঁই হচ্ছে অগ্নিকাণ্ডে গৃহহারা রোহিঙ্গাদের। তাদের নিয়মিতই দেয়া হচ্ছে প্রয়োজনীয় সহায়তা। অগ্নিকাণ্ডের পর বড় সংকট ছিল খাদ্য, খাবার পানি, চিকিৎসা, জ্বালানি ও শিশুদের নিরাপত্তা নিয়ে। ধীরে ধীরে এসব সংকট দূর হচ্ছে বলে জানান স্থানীয়রা।

কক্সবাজার শরণার্থী, ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কার্যালয়ের কমিশনার শাহ্ রেজওয়ান হায়াত বলেন, ভয়াবহ ওই অগ্নিকাণ্ডের পরপরই বিভিন্ন স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা সাহায্য-সহযোগিতা নিয়ে এগিয়ে আসে। সবার সহযোগিতায় দ্রুত সংকট কাটিয়ে ওঠার পাশাপাশি নির্ধারিত সময়ে তদন্ত প্রতিবেদন জমা দেয়া হবে। রোহিঙ্গাদের এই সংকটকালে তুরস্কের সহযোগিতা অনেক বেশি কাজে লাগবে।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved © 2019 doinikprovateralo.Com
Desing & Developed BY Md Mahfuzar Rahman